২৭ মার্চ, ২০১৭

ইসলামে যা প্রধান

লিখেছেন নরসুন্দর মানুষ

পাঁচ-পাঁচবার নামাজ পড়ি,
তিরিশটা দিন রোজা,
তারপরেও কমছে না তো
আমার পাপের বোঝা!

প্রতি বছর দিচ্ছি জাকাত,
দিচ্ছি বড় দান,
তবুও কেন পাই না অামি
বেহেস্তী সুঘ্রাণ!

তিরিশ পারা কোরান পড়ি
বুঝি বা না বুঝি
বুখারী অার মুসলিমে তাই
সঠিক রাস্তা খুঁজি!

উমরা করি, হজ্জও করি
মক্কা-মদিনা গিয়া,
হালাল বিবি রাখছি ঘরে
বোরখা-হিজাব দিয়া!

মিথ্যা কথা কই না আমি
হালাল কামাই খাই,
তবুও কেন বেহেস্ত যাবার
নিশ্চয়তা নাই!

তবে যদি...

সকল কিছু ফালায় দিয়া
জিহাদ-পথে যাই,
তবেই নাকি হুর-গেলমান
ডিরেক্ট বুকে পাই!

নবীর হাদীস স্পষ্ট বলে,
হও রে আগুয়ান -
তলোয়ারের তলেই অাছে
বেহেস্তী আসমান!

নবী আমার সোনার খনি
তার কথাটাই খাঁটি,
নামাজ পড়ো, যুদ্ধ করো
হও রে পরিপাটি!

যদ্দিন না খোদার শাসন
কায়েম নাহি হয়,
হাতে রাখো অস্ত্র, বুকে -
জিহাদী হৃদয়!

তেল বলো আর সোনাই বলো
অাসল সেটা নয়,
ইসলামেতে জিহাদ প্রধান
সত্য পরিচয়!