১ মার্চ, ২০১৭

ধূর্ত, ধড়িবাজ, ধুরন্ধর ধর্মধ্বজাধারীরা

➤ জেলখানার ছোট্ট প্রকোষ্ঠে বসে দিনরাত কোরান তেলওয়াত করে "ভালো" হয়ে গেছে বলে দাবি করেছে এক আইসিস জঙ্গি। যদিও দুই শতাধিক নারীকে সে ধর্ষণ করেছে, তবে সেটা নিয়ে বিশেষ কোনও অনুশোচনা নেই এই নব্য "ভালো" মানুষের।... এবার "ভালো" মানুষের খ্রিষ্টধর্মীয় নজির। ভালো মানুষ হবার উপায় বিষয়ক একটি বই লেখার কয়েক সপ্তাহ পরেই লেখক-ধর্মযাজক নগ্ন অবস্থায় ধরা পড়ে পরস্ত্রীর সঙ্গে ফষ্টিনষ্টি করার সময়

➤ ধর্মযাজক ধর্ষণ করেছে তরুণীকে - এমন খবরে নতুনত্ব নেই কোনও। তবে বর্তমান খবরের বৈশিষ্ট্য হচ্ছে - ধর্ষিতার ধর্মপ্রাণ মা নিজ হাতে তাঁর কন্যাকে তুলে দিয়েছেন ধর্মযাজকের হাতে; নইলে তাঁর মেয়ের মৃত্য হবে বলে আশঙ্কা করেছিলেন তিনি। ধর্মবিশ্বাসের কী মহিমা!

➤ শান্তির ধর্মের সবচেয়ে শান্তিময় স্থান মসজিদে পাওয়া গেছে চারপাশে শান্তি ছড়িয়ে দেবার উদ্দেশ্যে ব্যবহার্য্য দু'টি সুইসাইড ভেস্ট।

➤ খ্রিষ্টান ধর্মযাজক চার্চের নিজস্ব এলাকায় আয়োজন করে "ঝাঁক্রমণ" (ঝাঁক রমণ অর্থাৎ গ্রুপ সেক্স। - সৌজন্য: দুষ্টু শব্দ), তার প্রেমিকার সংখ্যা ৩০, সে বহন করে ভাইব্রেটর, সেক্স টয় ও অন্যান্য যৌনসামগ্রী, তার ঘরে আছে পর্ন ভিডিও সংগ্রহ...

➤ "আমার অনুসারীরা মৃত্যুর ঊর্ধ্বে" - এই বিশ্বাসের মহিমা প্রমাণ করতে ধর্মযাজক তার অনুসারীদের খাইয়েছে ইঁদুরের বিষ। জেনেশুনে বিষ পান করতে অনেকে সাগ্রহে এগিয়ে গিয়েছে। ফলাফল - ৫ জনের মৃত্যু, আরও ১৩ জন হাসপাতালে।

➤ ইছলামের নবীও ফেইল! ৫ বছরের শিশু বালিকার ওপরে যৌননির্যাতন চালিয়েছে এক ধর্মযাজক।

➤ গত এক বছরে ইরান সরকার ১ লক্ষ ৬০ হাজার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট ও ওয়েবসাইট বন্ধ করে দিয়েছে। কারণ ওসব থেকে ছড়ানো হচ্ছিলো নাস্তিকতা।

➤ চোরের সাক্ষী গাঁটকাটা। ভ্যাটিকানের পোপমারানি বলেছে, ইছলামী সন্ত্রাস বলে কিছু তো নেইই, নেই খ্রিষ্টীয় ও ইহুদি সন্ত্রাসও।

➤ "আমি সাত বিলিয়ন ডলার চুরি করেছি, কারণ যিশু আমাকে ধনী দেখতে চেয়েছে" - এই জাতীয় ছুতো ধর্মবিশ্বাসী ছাড়া আর কে দেবে!

➤ বিশ্বের বৃহত্তম শিশুকামী সংগঠন ক্যাথলিক চার্চের অস্ট্রেলিয়া শাখাকে তাদের যৌননির্যাতনের শিকার হওয়া শিশুদের ক্ষতিপূরণ দিতে গিয়ে গত ৩৫ বছরে ব্যয় করতে হয়েছে মাত্র ২১৩ মিলিয়ন ডলার! তো টাকাটা কোত্থেকে এসেছে? নিশ্চয়ই ভেড়াদের কাছ থেকে, যাদের শিশুরাই নিগৃহীত হয়েছে! ১৯৮০ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত যৌননির্যাতনের শিকার হয়েছে ৪৪৪৪ জন শিশু। এটা অফিসিয়াল তথ্য। অপ্রকাশিত এমন ঘটনার সংখ্যা নিশ্চয়ই ঢের বেশি।

➤ ইছলামে জোর জবরদস্তি নেই। কারণ ১৭ বছর বয়সী হিন্দু মেয়েকে অপহরণ করে ইছলাম গ্রহণ করতে বাধ্য করা কোনও অপরাধ নয়, সেটা নবীজির সুন্নত।

➤ সব ধর্মই নারীকে দিয়েছে সর্বোচ্চ সম্মান। তাই ইহুদি মোল্লারাও বউ-পেটানোর সমর্থক।

➤ মুছলিম অধ্যুষিত পূর্ব লন্ডনে ইছলাম ত্যাগ করার কারণে বীভৎস উপায়ে নিরন্তর উত্যক্ত করে এক ব্যক্তিকে তার স্ত্রী ও ২ শিশুসহ এলাকাছাড়া করা হয়েছে। স্থানীয় মুছলিমদের অশেষ কৃপা যে, তারা নবীজির স্পষ্ট আদেশ ("ইছলামত্যাগীকে হত্যা করো") পালন করেনি।

➤ নির্বাণলাভে মাদকের ভূমিকা পরখ করে দেখতেই, বোধহয়, এক বৌদ্ধ ভিক্ষু তার গাড়িতে রেখেছিল methamphetamine নামক মাদকের ৪ লক্ষ পিল। 

➤ কোহিনুর হীরার চেয়ে গোবর বেশি মূল্যবান - অমূল্য এই বাণী নেতৃস্থানীয় এক গরুপূজারি গাধা। ৬ সেকেন্ডের ভিডিও।

➤ ধর্মবিশ্বাসীরা কি হুমকি-ধামকি ছাড়া আর কিছু করতে জানে না? মাতা মেরি কুমার ছিলো না, বরং সে সঙ্গম করেছিল জোসেফের সঙ্গে - এমন কথা বলার কারণে মৃত্যুহুমকি পাচ্ছে এক খ্রিষ্টধর্মী যাজিকা। 

➤ সাত বছরের অসুস্থ বালকের জন্য চিকিৎসার ব্যবস্থা না করে প্রার্থনা চালিয়ে গেছে পিতা-মাতা। বালকটি মারা গেছে।

➤ ঋতু চলাকালীন নারীদের জন্য পালনীয় হিন্দুধর্মের বীভৎস রীতির শিকার হয়ে ১৫ বছর বয়সী বালিকা মারা গেছে নেপালে।

➤ "ভারতের অন্ধ্র প্রদেশের তিরুপতি শহরের ভেঙ্কটেশ্বর মন্দির পরিদর্শনে যাওয়া ভক্তরা দেবতার কৃপা পেতে মাথার সব চুল কেটে ফেলেন। সেই চুল দিয়ে ব্যবসা করছে মন্দির।" একেই বলে - বালের ব্যবসা!

➤ খতনা-করা মুছলিম রাষ্ট্রে গানবাজনা নিষিদ্ধ করার দাবি করা শতভাগ হালাল ও সুন্নত। "নেত্রকোনায় হেফাজতে ঈমানের দাবির মুখে লালন অনুসারীদের নিয়মিত অনুষ্ঠান বন্ধ।" আলহামদুলিল্যাহ। মদিনা সনদ বাস্তবায়নের পথে জোর কদমে এগিয়ে চলেছে বাংলাস্তান।