১৪ মে, ২০১৬

ইসলামোফোবিয়া শব্দটি কেন ভুয়া

Phobia-র বাংলা প্রতিশব্দ হিসেবে হরহামেশা 'ভীতি' বা 'আতঙ্ক' ব্যবহার করা হয়ে থাকে। অর্থটি অসম্পূর্ণ। যে-গুরুত্বপূর্ণ তথ্যটি এখানে উল্লেখিত থাকে না, সেটি হচ্ছে - এই আতঙ্ক বা ভীতি বাস্তবে ভিত্তিহীন। একটি উদাহরণ দেয়া যাক। 'হাইড্রোফোবিয়া' বাংলা অনুবাদে - জলাতঙ্ক। ভেবে দেখা যাক, গড়পড়তাভাবে জল (নাউজুবিল্যা! জল না, পানি!) কি আতঙ্কের উৎস হতে পারে? পারে না। সে-কারণেই তা phobia - fear নয়। অর্থাৎ phobia-র সঙ্গে fear-এর সুস্পষ্ট একটি ফারাক রয়েছে।

হালে বহুলপ্রচলিত 'ইসলামোফোবিয়া' শব্দটির প্রচলন করেছে ধূর্ত ভণ্ডরা এবং সেটি বিপুল উৎসাহের সঙ্গে অপপ্রয়োগ করে চলেছে ইছলামের ইজ্জতরক্ষকরা ও তাদের প্রাণের দোসর বামাতিরা। কথা হচ্ছে, কোরান-হাদিস-শরিয়ার বর্বর ও বীভৎস বিধিবিধানগুলোর সম্পর্কে সম্যক ধারণা যার আছে, এবং যে জানে, এই ইছলামের নামে এর অনুসারীরা কী তাণ্ডব চালাচ্ছে বিশ্বজুড়ে, তার ইছলামভীতি থাকাটা কতোটা অমূলক বা ভিত্তিহীন? বাস্তবে বিপজ্জনক হিসেবে প্রমাণিত ইছলামকে ভয় পাওয়াটা কি phobia? নাকি fear?

অথচ ইছলামের মরিয়া ইজ্জতরক্ষকরা ও বিভ্রান্ত বিপ্লবী বামাতিরা বলে উল্টো কথা।