৪ এপ্রিল, ২০১৬

ওয়াশিকুর বাবুর ইবুক: নাস্তিকদের কটূক্তির দাঁতভাঙা জবাব

এতো অল্প বয়সেই পরিপক্ক স্বচ্ছ চিন্তা, স্পষ্ট শাণিত যুক্তি ও বুদ্ধিদীপ্ত প্রকাশভঙ্গির মাধ্যমে নিজের জাত চেনাতে পেরেছিলেন তিনি। তাঁর লেখা তাঁকে করে তুলেছিল অন্যদের চেয়ে আলাদা, স্বতন্ত্র। এমনকি মহানবীর মহান বীর অনুসারীরাও বুঝে গিয়েছিল, এই ছেলের ভেতরে আগুন আছে, যা ইছলামের আরোপিত মেকি সৌন্দর্য ঝলসে দিয়ে প্রকৃত কদর্য রূপটি প্রকাশ করতে শুরু করেছে।

যুক্তি-বুদ্ধি দিয়ে মোকাবিলার সামর্থ্য ও ক্ষমতা ইছলামীদের নেই। ক্ষুরধার যুক্তির কাপুরুষোচিত উত্তর ধারালো চাপাতির মাধ্যমে দিয়ে তারা অভ্যস্ত। আর সেটাই তারা করেছে গত বছর এই দিনে। যদিও দুই হত্যাকারী ধরা পড়েছে ঘটনাস্থলেই, তবু এই এক বছরে বিচারকার্যের কোনও অগ্রগতি হয়েছে বলে খবর পাওয়া যায়নি। এর একমাত্র কারণ - কর্তৃপক্ষের সদিচ্ছার অভাব। মদিনা সনদ অনুযায়ী পরিচালিত দেশের সরকারটি এখন দেশজুড়ে মসজিদ-মাদ্রাসার প্রসারে (পড়ুন, ইছলামী উগ্রবাদের প্রসারে) অন্তপ্রাণ, হেফাজতলেহন ও মোল্লাতোষণকে তা গ্রহণ করেছে রাষ্ট্রীয় নীতি হিসেবে। 

বর্তমান ইবুকে গ্রন্থিত ওয়াশিকুর বাবুর লেখা সূক্ষ্ম রসের এই সিরিজটি জনপ্রিয়তা পেয়েছিল খুব। এতে ধর্মবিশ্বাসীদের ব্যবহৃত যুক্তিগুলোর দুর্বলতা, অর্থহীনতা, স্ববিরোধিতা, অসারত্ব ও অসাড়ত্ব ব্যবহার করে তাদের যুক্তি দিয়ে তাদেরকেই ঘায়েল করেছেন তিনি।

এই ইবুকের একেক পাতায় দু'টি করে প্রশ্নোত্তর দেয়া আছে এবং পাঠককে মনে রাখতে হবে, একটি অপরটির সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত ও তারা পরস্পরের পরিপূরক। দুই প্রশ্নোত্তরের মাঝখানে একটি উভমুখী তীর দিয়ে তা নির্দেশ করার চেষ্টা করা হয়েছে।

ধর্মকারীতে ওয়াশিকুর বাবুর লেখা পোস্টের সংখ্যা শতাধিক। তিনি লিখতেন দু’টি ছদ্মনামে - “অ বিষ শ্বাসী” ও “ধর্মবিদ দেশী”। ধর্মকারীতেই প্রকাশিত তাঁর “ফাল দিয়া ওঠা কথা” সিরিজ ও আরও অনেক লেখা বর্তমান ইবুকে অগ্রন্থিত হলেও পরবর্তীতে অবশ্য প্রকাশিতব্য।

ওয়াশিকুর বাবু, আপনার জীবদ্দশায় আপনার প্রতি আমার অপার মুগ্ধতার কথা আপনাকে জানিয়েছি একাধিকবার, শুনে আপনি বিব্রত হতেন খুবই। 

আপনাকে সতর্ক থাকতে বললে আপনি বরাবরই নিরাসক্তভাবে উত্তর দিতেন, “আমার জীবনের কোনও মূল্য নেই।” বাবু, সব সময় সঠিক কথা বলে অভ্যস্ত আপনার এই কথাটি কিন্তু অত্যন্ত ভুল ছিলো।

#
সাইজ: ০.৩৮ মেগাবাইট
ডাউনলোড লিংক (গুগল ড্রাইভ): https://goo.gl/HyfUJo
ডাউনলোড লিংক (ড্রপবক্স): https://goo.gl/O1Kk13

নিচে অনলাইনে পাঠযোগ্য ভার্শনও এমবেড করা হলো।