২৫ জুন, ২০১৫

দু'টি আধুনিক সূরা

লিখেছেন ধর্মব্যবসায়ী 

সূরা একবাপ

(বাপের মুখে অবতীর্ন)

আয়াত: ৪


১. বলো, আব্বা এক।
২. তিনি ব্যতীত অন্য কোনো আব্বা নাই।
৩. তিনি ব্যতীত অন্য কেউ তোমাকে জন্ম দেননি।
৪. এবং আব্বা ডাকার ক্ষেত্রে তাঁর সাথে কোনো অংশীদার স্থাপন করো না।


লিখেছেন বুদ্ধ মোহাম্মদ যীশু কৃষ্ণ

সূরা মোবাইল (মুঠোফোন)
নাস্তিক দেশে অবতীর্ণ
আয়াত: ১৭

সকল প্রশংসা তাহাদের, যাহারা মোবাইল আবিষ্কারক

০১. টিক ট্যাঁক টয়।
০২. চেয়ে দেখো, ঐ স্ক্রিনের দিকে যা আলোকময়।
০৩. যাহা তাহারা সাজাইয়াছে স্বচ্ছ রং ও আবর্তন দ্বারা।
০৪. যাহাতে তাহারা দিয়াছে উচ্চমানের র‍্যাম, প্রসেসর ও ব্যাটারি।
০৫. যাহা দ্রুত কাজ করিতে সক্ষম ও দীর্ঘস্থায়ী।
০৬. অথচ তোমরা ইহাকে অবহেলা করো।
০৭. তাহারা কি ভাবিয়া দেখো না, ইহাদের পূর্বসূরিদের তাহারা কীরূপে বিলুপ্ত করিতেছেন?
০৮. যাহারা এখন ঠাঁই পাইতেছে যাদুঘরে।
০৯. উহারা পারিত না তোমাদের মনোরঞ্জন করিতে।
১০. উহাদের ছিল না কোনো মাল্টিমিডিয়া এবং ইন্টারনেট সংযোগ শক্তি, যাহার দ্বারা তোমরা সংযুক্ত হইতে পারিতে অনলাইনে।
১১. উহারা ছিল কাফের ও অবিশ্বাসী মোবাইল বংশ।
১২. অতএব তোমরা ছুটিয়া যাও ডাস্টবিনে এবং উহাদের নিক্ষিপ্ত করো সর্বশক্তি দ্বারা।
১৩. অথবা উহা দান করিয়া দাও তোমাদের শত্রুদের নিকটে।
১৪. উহাদের আছে উচ্চমাত্রার অদৃশ্য তরঙ্গ, যাহা তোমাদের দেহের জন্য ক্ষতিকর।
১৫. নিশ্চয়ই ক্ষতিকর সবকিছু তোমাদের জন্য হারাম করা হইয়াছে।
১৬. যাহা আবিষ্কারকর্তানেন, তাহা তোমরা জানো না।
১৭. নিশ্চই আবিষ্কারকগণ পরম জ্ঞানী ও বুদ্ধিমান।