বুধবার, ৩০ ডিসেম্বর, ২০০৯

ব্যর্থ, অর্থহীন প্রার্থনা


প্রার্থনা করলে ভগবানেশ্বরাল্লাহ সাড়া দেন বলে অলীক যে-বিশ্বাস আছে ধর্মবিশ্বাসীদের, তা কখনও কখনও উৎকট পর্যায়ে পৌঁছে লোপ করে দিতে পারে তাদের সাধারণতম জ্ঞান। রুশ ভাষায় বলে, "প্রার্থনা করছো করো, তবে বৈঠা বাওয়া থামিয়ো না।" কিন্তু বৈঠা বাওয়া থামিয়ে শুধু প্রার্থনা-নির্ভর হয়ে পড়ে কীভাবে মা অভুক্ত রাখতে পারে সন্তানকে, অসুস্থ শিশুকে চিকিৎসাহীন রেখে নির্বিকার থাকতে পারে পিতা-মাতা, জেনে অবিশ্বাস্য মনে হয়।

ঘটনা ১. সব ধরনের চিকিৎসা সম্পূর্ণভাবে উপেক্ষা করে ১১ বছর বয়সের অসুস্থ কন্যার আরোগ্যের জন্য প্রার্থনাই যথেষ্ট মনে করেছিলেন তার পিতা-মাতা। ফলাফল কী? মেয়েটির অকাল মৃত্যু। এখানে পড়ুন

ঘটনা ২. ঈশ্বর খাবার সরবরাহ করবে, এই আশায় তিন মাস হাত গুটিয়ে বসে ছিলেন পাঁচ সন্তানের মা। কাজ খোঁজার কোনও উদ্যোগ নেননি, করেননি খাবার যোগাড়ের চেষ্টা। এক পর্যায়ে এগারোটি দিন সম্পূর্ণ অনাহারে ছিলো তারা। পুলিশ যখন তাদের উদ্ধার করে, তখন কথা বলার শক্তি ছিলো না কারুর। অবিশ্বাস্য খবরটি এখানে

মানুষ যে কবে এই সরল সত্যটি উপলব্ধি করবে যে, ...

এবং ...

(ছবিগুলোয় ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

প্রভুহীন, দাসত্বহীন



হা-হা-হা হাদিস


এতো রসময় কথা গুপ্ত আছে হাদিসে, জানতাম না আগে! নমুনা দেখুন:


১. নামাজ পড়ার সময় কেউ ঘুমিয়ে পড়লে শয়তান তার কানে মূত্রত্যাগ করে

২. স্বামী নয়, এমন পুরুষকে কোনও মেয়ে বুকের দুধ পান করালে সেই পুরুষের সঙ্গে সে একা অবস্থান করতে পারবে

আরও চাই? ভিডিও দেখুন।



মঙ্গলবার, ২৯ ডিসেম্বর, ২০০৯

ধর্মাতুল কৌতুকিম – ০৪

(সিরাতুল মুস্তাকিমে চলা কখনওই হবে না আমার, তাই ধর্মাতুল কৌতুকিম-ই আমার পথ )


১০.
বাগদাদ। অন্ধকার এক রাস্তায় এক পথিকের সামনে উদয় হলো এক সশস্ত্র ব্যক্তির। অস্ত্র তাক করে ধরে সে প্রশ্ন করলো:
– আপনি কোন ধর্মের?
পথিক উত্তর দিলো:
– আমি নাস্তিক।
– নাস্তিক, সেটা বুঝলাম, – বললো সশস্ত্র ব্যক্তি। – কিন্তু আপনি শিয়া নাস্তিক, নাকি সুন্নি নাস্তিক?


১১.
– ইলেকট্রিক বাল্ব বদলাতে ক'জন মুসলমান প্রয়োজন?
– একজনও না। বাল্ব অকেজো হয়ে গেলে বুঝতে হবে, তা আল্লাহর ইচ্ছা। আর তাঁর ইচ্ছার বিরুদ্ধে কিছু করাটা গুনাহ।


১২.
আফ্রিকায় এক সিংহের সামনে পড়লো এক ধর্মপ্রচারক। তৎক্ষণাৎ হাঁটু গেড়ে বসে সে প্রার্থনা করতে শুরু করলো ঈশ্বরের কাছে। তাকে অবাক করে দিয়ে প্রার্থনা শুরু করলো সিংহটিও।
– তুমি প্রার্থনা করছো কেন? – জিজ্ঞেস করলো ধর্মপ্রচারক। – আমি তো তোমাকে মারতে পারবো না।
– তা জানি, – জানালো সিংহটি। – আমি স্রেফ খাবার আগে প্রার্থনা সেরে নিচ্ছি।

সোমবার, ২৮ ডিসেম্বর, ২০০৯

আশুরা – আরও একটি জান্তব ও রক্তাক্ত ইসলামী উৎসব


আশুরা – আরও একটি জান্তব ও রক্তাক্ত ইসলামী উৎসব। সবচেয়ে ভয়াবহ ব্যাপার এই যে, শিশুরাও এই উৎসবের প্রত্যক্ষ্য অংশগ্রহণকারী। কিছু বীভৎস ছবি এখানে রাখা আছে, চাইলে নিজ দায়িত্বে দেখতে পারেন।

বিশ্বাসের সবচেয়ে বড়ো শত্রু যুক্তি – এসব দেখে-শুনে এই কথাটির সত্যতাই মেনে নিতে হয়। সাধারণ জ্ঞান, সরল যুক্তি, পরিমিতি বোধ বিশ্বাসের দুর্ভেদ্য দেয়ালের সামনে অসহায় বোধ করে।


(ছবিতে ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

রবিবার, ২৭ ডিসেম্বর, ২০০৯

খোদার খোমাখাতা


(ছবিতে ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

শনিবার, ২৬ ডিসেম্বর, ২০০৯

বড়দিনের বিকল্প সঙ্গীত


অস্ট্রেলীয় কমিক গ্রুপ ট্রাইপড-এর দৃষ্টিতে ক্রিসমাসের কাহিনী। লিরিকস এখানে


Toby Keith গাইছেন কান্ট্রি স্টাইলে প্রতিবাদী গান।
(বেয়াড়া এই ভিডিওকে Align Centre করতে পারিলাম না তো কিছুতেই...


অস্ট্রেলীয় কমেডিয়ান, অভিনেতা, সুরকার, সঙ্গীত-রচয়িতা, সঙ্গীতপরিচালক টিম মিনচিন এর চোখে ক্রিসমাস। লিরিকস এখানেএর আগে পোস্ট করা তাঁর আরও একটি গান


বলিউডি ক্রিসমাস সঙ্গীত।



শুক্রবার, ২৫ ডিসেম্বর, ২০০৯

আহমেদ – দ্য ডেড টেররিস্ট: বড়দিনে




বড়দিনে বড়ো "দ্বীনবানের" বড়ো দীন ভাবনা


ভাবনা এক.

সব মেয়ের সতীচ্ছদ পর্দা ফাটে বাইরের দিক থেকে, তবে মেরির ফেটেছিল ভেতরের দিক থেকে।


ভাবনা দুই.
আজব এক পরিবার! মা কুমারী, মায়ের পথ অনুসরণ করে পুত্রও কুমার! ৩৩ বছর বয়স পর্যন্ত! যৌনসুখবঞ্চিতদের জন্যে করুণাই হয়।


ভাবনা তিন.
পরিবার পরিকল্পনার ছেলে-হোক-মেয়ে-হোক-একটি-সন্তানই-যথেষ্ট নীতিতে ঈশ্বরও আস্থাবান।


বুধবার, ২৩ ডিসেম্বর, ২০০৯

নির্ধার্মিক মনীষীরা – ০৮


অনেক লোকের ভীতি আর গুটিকয়েক লোকের ধূর্ততার যোগফলে সৃষ্টি হয়েছে সকল ধর্মের।
Stendhal (মূল নাম Marie-Henri Beyle, ১৭৮৩-১৮৪২,ফরাসী ঔপন্যাসিক), quoted from Jonathon Green, The Cassell Dictionary of Insulting Quotations


বলতে আমার একেবারেই দ্বিধা নেই যে, সব বুদ্ধিমান ও শিক্ষিত লোকের মতো আমিও বিশ্বাস করি জৈব বিবর্তনে। আমার ভারি অবাক লাগে, যখন এই যুগেও কেউ এ নিয়ে প্রশ্ন তোলে।
Thomas Woodrow Wilson (১৮৫৬-১৯২৪, আমেরিকার আটাশতম প্রেসিডেন্ট), letter to an academic, August 29, 1922, quoted from James A Haught, 2000 Years of Disbelief


মাঝে-মাঝে শয়তান আমাকে ঈশ্বরে বিশ্বাস করতে প্রলুব্ধ করে।
Stanislaw J Lec (১৯০৯-১৯৬৬, পোলিশ কবি, বিংশ শতাব্দীর অন্যতম শ্রেষ্ঠ অ্যাফরিজম রচয়িতা), Unkempt Thoughts, 1962, from a translation by Jacek Galazka

আমার বোরখা-ফেটিশ – ০১


আমার, বোধ হয়, বোরখা-ফেটিশ আছে। নইলে হিজাব সংশ্লিষ্ট ছবি বা কার্টুন দেখলে বা দেখাতে পারলে আমার এতো আনন্দলাভের কারণ কী?

একটি বিখ্যাত ছবি...



... এবং একটি কার্টুন।


(ছবিগুলোয় ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

সোমবার, ২১ ডিসেম্বর, ২০০৯

গাঁজাখুরি গল্পের প্রত্যাশিত প্রতিক্রিয়া


সারশূন্য, গাঁজাখুরি ধর্মীয় গল্প শুনে নির্ধর্মীদের প্রতিক্রিয়া কেমন হতে পারে, তার অতীব চমৎকার একটি নিদর্শন এই ভিডিওতে দেখিয়েছেন প্রিয় ইউটিউবার philhellenes। পরম তৃপ্তি বোধ করেছি দেখে।


যিশু ও জল

যিশু তো পানির ওপর দিয়ে হাঁটতে পারতেন। আর তাই তিনি ডাইভ দিলে কী অবস্থা হতো, দেখুন

(ব্রাউজারে দেখা না গেলে এখানে ক্লিক করে দেখে নিন)

হুমায়ুন আজাদের ধর্মবিরোধী প্রবচনগুচ্ছ – ০৪


১০. মুসলমানের মুক্তি ঘটেনি, কারণ তারা অতীত ও তাদের মহাপুরুষদের সম্পর্কে কোনো সত্যনিষ্ঠ আলোচনা করতে দেয় না।


১১. পুরোনো কালের মানুষ যদি দৈবাৎ একটি টেলিভিশনের সামনে এসে পড়তো, তাহলে তাকে দেবতা মনে করে পুজো করতো। আজো সেই পুজো চলতো।


১২. মসজিদ ভাঙলে আল্লাহর কিছু যায় আসে না, মন্দির ভাঙলে ভগবানের কিছু যায় আসে না; যায় আসে শুধু ধর্মান্ধদের। ওরাই মসজিদ ভাঙে, মন্দির ভাঙে।

রবিবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০০৯

ঐশী ধর্মের পার্থিব অর্থনির্ভরতা


ঐশী ধর্ম কেন পার্থিব অর্থনির্ভর হবে, ভেবে পাই না। যাবতীয় ধর্মের অর্থলোলুপ চরিত্র লক্ষ্য করে একটি নিশ্চিত সিদ্ধান্তে আসা যায়: ধর্ম পরম সুবিধেজনক ব্যবসা। প্রাসঙ্গিক একটি ভিডিও আগে পোস্ট করেছিলাম।

এবারে একটি গান শোনা যাক বরং। গ্রুপের নাম জেনেসিস, গাইছে খ্রিষ্টান ইভ্যানজেলিক টিভি-ধর্মযাজকদের প্রত্যক্ষভাবে কটাক্ষ করে। খুবই মজার ভিডিও। লিরিক্স এখানে



খুবই প্রাসঙ্গিক একটা ভিডিও পেয়ে জুড়ে দিচ্ছি এখানে। ধরে নেয়া যাক, এটি "প্যাট্রিক কন্ডেল: আমাদের লোক - ৫"।

লক্ষ্য করুন, ভিডিওটি ইংরেজি সাবটাইটেলসহ দেখার ব্যবস্থা আছে।

শনিবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০০৯

আস্তিক-নাস্তিকে মতৈক্য




বৃহষ্পতিবার, ১৭ ডিসেম্বর, ২০০৯

ধর্মাতুল কৌতুকিম – ০৩

(সিরাতুল মুস্তাকিমে চলা কখনওই হবে না আমার, তাই ধর্মাতুল কৌতুকিম-ই আমার পথ )

০৭.
– কাল রাতটা যা কেটেছে না! – সকালবেলা খোদেজার কাছে এসে গল্প করছিল আয়েশা। – আমাকে জড়িয়ে ধরে মুহম্মদ বললো, "তোমার দু'পায়ের মধ্যিখানে আছে বেহেশতের দরজা, আর আমার কাছে আছে বেহেশতের চাবি।" তারপর সে চাবি ঢোকালো সেই দরজায়।
– হারামজাদা! – খোদেজা বললো সখেদে। – অথচ আমাকে সে বছরের পর বছর বলে এসেছে, ওটা নাকি ইস্রাফিলের শিঙা, আর আমি এতোদিন ধরে তাতে ফুঁ দিয়ে এসেছি!

০৮.
যখন ছোট ছিলাম, প্রতিদিন ঈশ্বরের কাছে প্রার্থনা করতাম একটা নতুন বাইসাইকেলের জন্য। পরে  বুঝে গেলাম, এভাবে কোনও ফল পাওয়া যাবে না। তাই একটা বাইসাইকেল চুরি করে পাপমুক্তির জন্যে তাঁর কাছে ক্ষমাপ্রার্থনা করেছি।

০৯.
ব্রিটেনের আবহাওয়া ঠিক মুসলমানদের মতো – হয় sunni, নয় shi'te

মঙ্গলবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০০৯

বিল মার মার কাটকাট - ০৩


স্রেফ দুর্দান্ত! কয়েকটি উদ্ধৃতি দেয়া যাক:

... I was raised catholic but, you know, I was never molested, and I'm a little insulted. I guess they didn't find me attractive...

... You are a priest and you spend your whole life spearing this nonsense about the snake and the well, the apple and the rib... It's like... oh, fuck it! Just blow me, kid!...

... Promising pussy in the afterlife is the lowest thing I've ever heard in my life...


সোমবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০০৯

কীভাবে বুঝিবো তাহারে...


(ছবিতে ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

শনিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০০৯

বদের বদ নাস্তিকদের সাথে তর্কের তরিকা


Christians Tips To Doing Battle With Evil Atheists নামের এই লেখাটি পড়ে বড়োই আমোদিত হয়েছি এবং নাস্তিকদের সাথে তর্ক করার টিপসের কিয়দংশ উল্লেখ না করে পারছি না।

মনে রাখতে হবে:

১. তারা আমাদেরই মতো মানুষ। এতোদিন ধরে যে-বিশ্বাস আপনাদের দেয়া হয়েছে, তার বিপরীতমুখী সত্য এই যে, তারা নিচু শ্রেণীর প্রাণী নয়...

২. আপনার চেয়ে তারা স্মার্ট - এমন সম্ভাবনা প্রবল। তাদের সাথে পেরে ওঠা কঠিন হতে পারে...

৩. তারাও আপনার মতোই নরমাল, হয়তো আপনার চাইতে একটু বেশিই...

৪. খুব সম্ভব, বিতর্কে তারা আপনাকে কোণঠাসা করে ফেলবে। এমন সম্তাবনা প্রবল যে, তারা তাদের অবস্থান বিষয়ে গভীরভাবে চিন্তা করে দেখেছে এবং তাদের বিশ্বাসের কারণ তারা স্পষ্ট উপলব্ধি করতে পারে। আমরা হয়তো স্রেফ কিছু যুক্তি উপস্থাপন করবো, যেগুলো আমরা শুনেছি এমন একজনের কাছে, যিনি এই যুক্তিগুলোর সাহায্যে শত্রুপক্ষকে ধ্বংস করে ফেলা সম্ভব বলে নিশ্চয়তা দিয়েছেন। কিন্তু সমস্যা হলো, নাস্তিকদের অনেকেই এই একই যুক্তিগুলো অজস্রবার শুনেছে এবং অনায়াসে সে-সবের মোকাবেলা করতে পারে।

৫. বাইবেল বিষয়ে তাদের জ্ঞানকে আন্ডারএসটিমেট করবেন না। গড়পড়তা খ্রিষ্টানের চেয়ে বাইবেল তারা অনেক বেশি ভালো জানে। বাইবেলের যে-অংশগুলো আপনাকে বিব্রতকর অবস্থায় ফেলবে, সেগুলো তাদের খুব ভালো জানা আছে এবং আপনাকে বেকায়দায় ফেলতে সে-সবের উদ্ধৃতি দিতে তারা দ্বিধা করবে না।

এর পরে উল্লেখ করা হয়েছে বিতর্কের স্ট্র্যাটেজি। পড়ে দেখতে পারেন।

বাইবেল কম-জানা বা বেশি-জানা প্রসঙ্গে একটা কৌতুক মনে পড়লো:

- কমিউনিস্ট কাকে বলা যায়?
- যে মার্কস আর লেলিনের লেখাগুলো পড়ে।
- আর অ্যান্টি-কমিউনিস্ট?
- লেখাগুলো পড়ে যে বোঝে।

এক সুতোয় বাঁধা


প্রথমে এই কার্টুনটি দেখে ভেবেছিলাম, নেহাতই কার্টুন। অতিরঞ্জন।


পরে এই ছবি দেখে টনক নড়লো।


শেষে পেলাম এই ভিডিও।



আহমেদ – দ্য ডেড টেররিস্ট


মাস্টারপিস! আর কিছু বলার নেই।


শুক্রবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০০৯

নির্ধার্মিক মনীষীরা – ০৭


ঈশ্বরের ওপরে রাগ করা সম্ভব নয় আমার পক্ষে। ঈশ্বরে আমার বিশ্বাসই নেই।
Simone de Beauvoir (১৯০৮-১৯৮৬, ফরাসী লেখিকা, দার্শনিক, নারীবাদী), The Observer (London) (January 7, 1979), quoted from Encarta® Book of Quotations (1999)


আমি কখনওই আন্দাজ করি না। কারণ তা খুবই বাজে অভ্যাস – যুক্তিবাদী স্বভাবকে ধ্বংস করে।
আর্থার কোনান ডয়েল (১৮৫৯-১৯৩০, ব্রিটিশ লেখক, চিকিৎসক; শার্লক হোমসের স্রষ্টা), in The Sign of Four, ch. 1 (1890), quoted from The Columbia Dictionary of Quotations


বিজ্ঞান পড়ানো প্রয়োজন ধর্মকে সমর্থন করতে বা ধ্বংস করতেও নয়। বিজ্ঞান শেখানো প্রয়োজন ধর্মকে স্রেফ উপেক্ষা করে
-- Steven Weinberg (১৯৩৩-, আমেরিকান পদার্থবিদ, ১৯৭৯ সালে নোবেল পুরস্কার পান পদার্থবিদ্যায়), Freethought Today, April, 2000

বৃহষ্পতিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০০৯

আন্তঃধর্ম প্রার্থনা প্রতিযোগিতা


জেরুজালেমে আর্মেনীয় ও গ্রিক অর্থোডক্স ভিক্ষুদের মধ্যে তুমুল মারপিটের খবরটি হয়তো অনেকেরই জানা। সেটির ভিডিও দেখুন:



এই ঘটনাকে ভিত্তি করে ভিডিও গেমের আদলে বানানো হয়েছে "আন্তঃধর্ম প্রার্থনা প্রতিযোগিতা"। প্রভূতআনন্দদায়ী এই ভিডিওটি না দেখা বেজায় অনুচিত হবে।


বুধবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০০৯

প্রচারে বিঘ্ন


স্থান: নর্থ ক্যারোলিনা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস
কাল: ৩ ডিসেম্বর, ২০০৯
পাত্র: পঁচিশ বছর বয়সী ধর্মপ্রচারক Jesse Morrell এবং তাকে উত্যক্তকারী দুই ত্যাঁদোড় যুবক।

(ছবিতে ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

ধর্মপ্রচারকের পিঠে ঝোলানো প্ল্যাকার্ডে লেখা:
REPENT
Fornicators, Homosexuals, Liars, Thieves, Masturbators, Obama Voters, Buddhists, Dirty Dancers, Hindus, Gangster Rappers, Muslims, Drunkards, Feminists, Immodest Women, Democrats, Liberals, Evolutionists, Atheists, Potheads, Sodomites.
HELL AWAITS YOU!

আর তার সামনে দুই যুবকের উদ্দেশ্যপ্রণোদিত সমকামী আলিঙ্গন।

ব্যাপক মজা পেলাম।


ইউটিউব ভিডিও ডাউনলোড তরিকা


১.

২.

৩.

৪. এই সাইটের ওপরের দিকে নীল লম্বাটে আয়তক্ষেত্রে ইউটিউবের url বসিয়ে ডানপাশের Download বাটনে ক্লিক করুন (নিচে বড়ো হরফে লেখা Download-এ প্রলুব্ধ হবেন না)।

৫. একটু নিচে কলাপাতা-সবুজ বারের নিচে সেই রঙেরই ডাউনলোড লিংক পাবেন নির্দেশিকাসহ।

৬. লাল রঙের Error দেখালে পাতাটা দু’-একবার রিফ্রেশ করতে হবে।

দ্রষ্টব্য: গুগল ভিডিওর জন্যও একই তরিকা প্রযোজ্য।

সোমবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০০৯

নাস্তিক্যবাদ ধর্ম নয় কেন?


নাস্তিক্যবাদকে ধর্মের সঙ্গে যারা তুলনা করে থাকে, তাদের বলতে ইচ্ছে করে:

১. নাস্তিক্যবাদ ধর্ম হলে "অফ" বাটনকে টিভি চ্যানেল বলতে হয়।
২. নাস্তিক্যবাদ ধর্ম হলে টাককে বলতে হয় চুলের রং।
৩. নাস্তিক্যবাদ ধর্ম হলে স্ট্যাম্প না জমানোকে হবি বলতে হয়।
৪. নাস্তিক্যবাদ ধর্ম হলে "বাগান না করাও একটি শখ, ক্রিকেট না খেলাও একটি ক্রীড়া, কোকেইন সেবন না করাও একটি নেশা।" (ইনভার্টেড কমাবদ্ধ অংশটির সূত্র : জুবায়ের অর্ণব)
...

রবিবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০০৯

ধর্মাতুল কৌতুকিম – ০২

সিরাতুল মুস্তাকিমে চলা কখনওই হবে না আমার, তাই ধর্মাতুল কৌতুকিম-ই আমার পথ


০৪.
টেডি বেয়ার আর মোহম্মদের মধ্যে সাদৃশ্য কোথায়?
দু'জনেই শোয় শিশুদের সাথে।


০৫.
ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের চারপাশ দিয়ে উড়ে বেড়াতো কে? Superman
ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের গা বেয়ে ওপরে উঠতো কে? Spiderman
ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার ফুঁড়ে ভেতরে ঢুকে পড়েছিল কে? Musulman


০৬.
নাস্তিক: ওয়েটার! এই মাছিটা কী করছে আমার স্যুপের ভেতরে?
ওয়েটার: প্রার্থনা করছে।
নাস্তিক: শুনে মজা পেলাম! তবে এই স্যুপ আমি খাবো না। নিয়ে যান।
ওয়েটার: দেখলেন? মাছিটার প্রার্থনা মঞ্জুর হয়েছে!

জর্জ কারলিন: রেলিজিয়ন ইজ বুলশিট


এই ভিডিওতে ধর্ম-ঈশ্বরকে ধুয়ে ফেললেন জর্জ কারলিন, পাঁচবার গ্র্যামি-জয়ী খ্যাতনামা আমেরিকান স্ট্যান্ড-আপ কমেডিয়ান। ইউটিউবে ভিডিওটি দেখা হয়েছে একষট্টি লক্ষেরও বেশিবার!


শনিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০০৯

র‌্যান্ডম মসজিদ



(ছবিতে ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

শুক্রবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০০৯

নির্ধার্মিক মনীষীরা – ০৬


(নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক এক সুহৃদ এই সিরিজের অনুবাদকর্মে প্রভূত অবদান রেখে চলেছেন। তাঁর প্রতি অপরিসীম কৃতজ্ঞতা।)


স্বর্গের খাতিরে ইহজগতের জীবনকে বিসর্জন দেয়ার অর্থ মূলকে দূরে ঠেলে ছায়ার পেছনে ছোটা।
ভিক্টর হুগো, (১৮০২-১৮৮৫, ফরাসী ঔপন্যাসিক, কবি, নাট্যকার, মানবাধিকার কর্মী), from Rufus K Noyes, Views of Religion, quoted from James A Haught, ed, 2000 Years of Disbelief


আত্মা নামের ধারণাটি হজম করতে আমার মন অপারগ। আমার ভুল হতে পারে, আত্মা হয়তো আছে। তবু আমি স্রেফ বিশ্বাস করি না।
টমাস আলভা এডিসন (১৮৪৭-১৯৩১, পৃথিবীর ইতিহাসে অন্যতম শ্রেষ্ঠ সৃষ্টিকর্তা... থুক্কু, আবিষ্কারক), "Do We Live Again?"


হাবভাবে মনে হয়, ধর্মযাজকেরা দারিদ্র্য বা পশুদের প্রতি বর্বরতাকে ততোটা বিভীষিকাময় মনে করেন না, যতোটা মনে করেন সূর্যস্নান ও নগ্নতাকে।
Susan Ertz (১৮৯৪-১৯৮৫, ব্রিটিশ-আমেরিকান ঔপন্যাসিকা, কল্পকাহিনী লেখিকা), quoted from Jonathon Green, The Cassell Dictionary of Cynical Quotations


বৃহষ্পতিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০০৯

ধর্মমুক্ত শৈশব চাই


শৈশবেই শিশুদের মনে ধর্ম-বিষয়ক নানান কুসংস্কার ও ভীতি এমনভাবে ঢুকিয়ে দেয়া হয় যে, তাদের অধিকাংশই মৃত্যু অবধি বেরিয়ে আসতে পারে না সেই ঘোর থেকে। বড়ো হয়ে মেধা, পড়াশোনা ও বিবেচনাবোধের ভিত্তিতে নিজের পছন্দের পথ বেছে নেয়ার অধিকার থেকে শিশুকে বঞ্চিত করার এই অনিষ্টকর রীতি পরিহার করা আবশ্যক। শিশুকে ধর্মমুক্ত রাখুন। তার মস্তিষ্ক-প্রক্ষালন প্রক্রিয়া সম্পূণরূপে ত্যাজ্য - হোক তা ধর্মের সপক্ষে কিংবা বিপক্ষে।


(ছবিতে ক্লিক করে পূর্ণ আকারে দেখুন)

বুধবার, ২ ডিসেম্বর, ২০০৯

প্যাট্রিক কন্ডেল: আমাদের লোক – ০৪


এবার তিনি বলছেন তাঁর "বিশ্বাসের" কথা। বরাবরের মতোই এবারেও তীক্ষ্ণ, লক্ষ্যভেদী।

লক্ষ্য করুন, ভিডিওটি ইংরেজি সাবটাইটেলসহ দেখার ব্যবস্থা আছে।


মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর, ২০০৯

ধর্মাতুল কৌতুকিম – ০১


সিরাতুল মুস্তাকিমে চলা কখনওই হবে না আমার, তাই ধর্মাতুল কৌতুকিম-ই আমার পথ

০১.
কোনও এক আরব দেশে দুই পুরুষের কথোপকথন।
– শুনেছেন নাকি, এক মেয়ে রাস্তা পার হতে গিয়ে গাড়ি চাপা পড়েছে?
– ঠিক হয়েছে! ঘর ছেড়ে বেরিয়েছিল সে কী করতে!

০২. 
– ইলেকট্রিক বাল্ব বদলাতে ক'জন মুসলমান প্রয়োজন?
– একজনও না। তারা অন্ধকারেই থাকবে, তবে এর জন্যে তারা দোষারোপ করবে ইহুদিদের।

০৩.
সঙ্গমকালে "ওহ্ গড! ওহ্ গড!" বলে চিৎকার করাটা প্রার্থনা হিসেবে গণ্য করা হবে না।

নুহ-এর নৌবহর


বিজ্ঞানের দৌলতে কতো দুর্জ্ঞেয় রহস্য ভেদ করা সম্ভব হবে, তা যদি ধর্মীয় কিতাবগুলির অদূরদর্শী নির্বোধ রচয়িতারা অনুমান করতে পারতেন, তাহলে বিশ্বব্রহ্মাণ্ডের বয়স মাত্র কয়েক হাজার বছর বলে ঘোষণা দিয়ে স্কুলের গবেট ছাত্রের মতো হাস্যস্পদ হতে তাঁরা চাইতেন না নিশ্চয়ই! ডাইনোসর-যুগের প্রাণীগুলোর কথা বা সেই সময়ের বর্ণণা কেন নেই সেই স্বঘোষিত "শ্রেষ্ঠতম" ও "বিজ্ঞানসম্মত" গ্রন্থগুলোয়, তার উত্তর দিতে হিমশিম খেয়ে যান ধর্মপণ্ডিতেরা (এক্ষেত্রে "পণ্ডিত" শব্দটি "পণ্ড" থেকে এসেছে বলে ধরে নিতে হবে)। 

তাঁদের কাজ সহজ করে দিতে পারে এক কার্টুনিস্টের দেয়া এই সমাধানটি।